Login | Register

নুয়াইম বিন হাম্মাদের: আল ফিতান

সুফইয়ানী মদিনায় সৈন্যবাহিনী প্রেরণ, এবং সেখানে সৈন্য প্রস্তুত করতে না পারা

   

সুফইয়ানী মদিনায় সৈন্যবাহিনী প্রেরণ, এবং সেখানে সৈন্য প্রস্তুত করতে না পারা

Double clicking on an arabic word shows its dictionary entry
হযরত আলী ইবনে আবু তালেব রাযিয়াল্লাহু আনহু হতে বর্ণিত যে, তিনি বলেন কূফায় ধ্বংসযজ্ঞ চালানের পর সুফইয়ানী ঐ ব্যক্তির নিকট পত্র লিখবে যে তার সৈন্যদল নিয়ে কূফায় এসেছে। সে পত্রে তাকে হিজাজের দিকে অগ্রসর হওয়ার আদেশ দিবে। ফলে সে মদীনার দিকে অগ্রসর হবে। অতপর সে কুরাইশের উপর অস্ত্র ধারণ করবে। অতপর তাদের থেকে ও আননারদের থেকে চারশত লোককে হত্যা করবে। মহিলাদের পেট চিড়বে। শিশুদেও হত্যা করবে। আর কুরাইশের দুইজন ব্যক্তিকে হত্যা করবে। একজন পুরূষ ও তার বোনকে। তাদেরকে মুহাম্মাদ ও ফাতেমা বলা হবে। এবং তাদেরকে মদীনার মসজিদের গেটে তাদেও শুলে চড়ানো হবে।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৯২২ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٩٢٢
جعفر
عن علي بن أبي طالب رضى الله عنه قال يكتب السفياني إلى الذي دخل الكوفة
بخيله بعدما يعركها عرك الأديم يأمره بالسير إلى الحجاز فيسير إلى المدينة فيضع
السيف في قريش فيقتل منهم ومن الأنصار أربعمائة رجل ويبقر البطون ويقتل الولدان
ويقتل أخوين من قريش رجل وأخته يقال لهما محمد وفاطمة ويصلبهما على باب المسجد
بالمدينة
হযরত আলী রাযিয়াল্লাহু আনহু হতে বর্ণিত যে, তিনি বলেন মদীনায় এক সৈন্যদল প্রেরণ করা হবে। অতপর তারা হযরত মুহাম্মাদ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম এর পরিবার পরিজনদের থেকে যারা উহার উপর সক্ষম তাদের আটক করবে। আর বনু হাশেমের পুরূষ ও মহিলাদিগকে হত্যা করবে। আর ঐ সময়ই মাহদী আলাইহিস সালাম ও মাবয়ায মদীনা থেকে মক্কায় পালায়ন করবেন। অতপর তাদের দুজনের অনুসন্ধানের জন্য সৈন্য প্রেরণ করা হবে। আর তারা দুজন মিলিত হবে আল্লাহ তা’আলা সম্মান ও আল্লাহ তা’আলার আমানতে তথা নিরাপদে।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৯২৩ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٩٢٣
عن علي قال يبعث بجيش إلى المدينة فيأخذون من قدروا عليه من آل محمد صلى الله
عليه وسلم ويقتل من بني هاشم رجال ونساء فعند ذلك يهرب المهدي والمبيض من المدينة
إلى مكة فيبعث في طلبهما وقد لحقا بحرم الله وأمنه
হযরত আলী ইবনে আবু তালেব রাযিয়াল্লাহু আনহু হতে বর্ণিত যে, তিনি বলেন যখন মদীনার মানুষের নিকট সযফইয়ানীর সৈন্য তখন তারা মদীনা হতে মক্কার দিকে পালায়ন করবে। তাদের হতে কুরাইশদের তিনটি গ্রুপ হবে। তাদের দিকে দেখতে থাকবে।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৯২৪ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٩٢٤
بن سعد عن عياش بن عباس عمن حدثه
عن علي بن أبي طالب رضى الله عنه قال يهرب ناس
من المدينة إلى مكة حين يبلغهم جيش السفياني منهم ثلاثة نفر من قريش منظور إليهم
হযরত কা’ব রাযিয়াল্লাহু আনহু হতে বর্ণিত যে, তিনি বলেন তখন মদীনাকে হালাল মনে করা হবে। অর্থাৎ মদীনার সম্মাান নষ্ট করা হবে। আর নিঃপাপ মানুষকে হত্যা করা হবে।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৯২৫ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٩٢٥
عن كعب قال تستباح
المدينة حينئذ و
تقتل النفس الزكية
হযরত হানাস ইবনে আব্দুল্লাহ হতে বর্ণিত যে, তিনি ইবনে আব্বাস রাযিয়াল্লাহু আনহু কে বলতে শুনেছেন যে, মদীনায় অচিরেই একজন বনু হাশেম হতে একজন খলীফা হবে। অতপর মদীনার জনগন তাদের থেকে বের হয়ে মক্কায় চলে যাবে। অতপর যখন তারা মক্কায় আসবে তখন মক্কার বাদশা তাদের নিকট যারা আসবে সকলকে তাদের নিকট পাঠিয়ে দিবে। আমাদের নিকট কি তোমরা স্বস্তি পাওয়ার ধারণা করছ? অতপর তাদেরকে বনু হামেমের এক ব্যক্তি ফিরিয়ে নিয়ে আসবে। এবং তার উপর ক্রোধান্বিত হবে। অতপর মক্কার বাদশা তার উপর ক্রোধান্বিত হবে। অতপর তাকে হত্যার আদেশ দিবে। ফলে তাকে হত্যা করা হবে। অতপর যখন দিন পার হয়ে পরবর্তী দিন আসবে তখন তাদের থেকে একজন ব্যক্তি আসবে। তার কাপড়ে তরবারী জড়ানো থাকবে। অতপর বাদশাকে উদ্দেশ্য করে বলবেÑ আমাদের সাথীকে হত্যা করার ব্যাপারে তোমাকে কিসে উদ্ভুদ্দ করলো? অতপর বাদশা বলবে সে আমাকে ক্রোধান্বিত করেছে। অতপর লোকটি বলবে, হে মুসলিম সম্প্রদায় তোমরা সাক্ষি থাকো এ কথার উপর যে, সে তাকে হত্যা করেছে কারণ সে তাকে ক্রোধান্বিত করেছে। অতপর সে তার তরবারী কোষমুক্ত করবে। তা দ্বারা বাদশাকে আঘাত করবে। অতপর তারা তায়েফের দিকে ঝোঁকবে তথা তায়েফে যাওয়ার জন্য রওয়ানা দিবে। অতপর মক্কার অধিবাসীদের নিকট যখন তাদের খলীফার খবর পৌছবে তখন তারা বলবে আল্লাহর কসম! তারা আমাদের ক্ষতি করেছে। আমরা তাদের ছাড়বো না। তিনি বলেন অতপর তারা তাদের দিকে সফর করবে তখা যাবে। অতপর হাশেমীরা তাদের নিকট আল্লাহ তা’আলার ওয়াসেতায় তাদের নিকট অনুনয় বিনয় করবে। (এবং বলবে ) আমাদের রক্তের তোমাদের রক্তের মাঝে আল্লাহ আছেন। তোমরা ভালভাবে জান যে, বাদশা আমাদের সাথীকে অন্যায় ভাবে হত্যা করেছে। এমনকি তারা তাদের থেকে ফেরৎ যাবে না। তাদের সাথে যুদ্ধ করবে। অতপর তাদের পরাজিত করবে। এবং তারা মক্কায় প্রভাব বিস্তার করবে। (রাজত্ব করবে।) অতপর তাদের সাথে সংগঠিত সকল বিষয়ের সংবাদ মদীনার বাদশার নিকট পৌছবে। তখন তারা বলবে, আল্লাহর কসম! যদি আমরা তাদের ছেড়ে দেই তাহলে আমরা নিশ্চই খলীফাকে বিপদে ফেলবো। (আমরা তাদের কোন মতেই ছাড়বো না।) অতপর মদীনার বাদশা তাদের দিকে একটি সৈণ্য দল প্রেরণ করবে। তখন তারা তাদেরকে পরাজিত করবে। অতপর যখন খলীফা তাদের দিকে সৈন্য প্রেরণ করবে তারা ঐ সমস্ত লোক যারা তাদের নিয়ে ধ্বংস হয়ে যাবে।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৯২৬ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٩٢٦
خالد بن أبي عمران عن حنش بن عبد الله
سمع ابن عباس رضى الله عنه يقول سيكون
خليفة من بني هاشم بالمدينة فيخرج ناس منهم إلى مكة فإذا قدموها أرسل إليهم صاحب
مكة ما جاء بكم أعندنا تظنوا أن تجدوا الفرج فيراجعه رجل من بني هاشم فيغلظ عليه
فيغضب صاحب مكة فيأمر به فيقتل فإذا كان من الغد جاءه رجل منهم قد اشتمل بثوبه على
سيفه
فيقول من حملك على قتل صاحبنا
فيقول أغضبني
فيقول اشهدوا يا معشر
المسلمين إنه إنما قتله لأنه أغضبه فيخترط سيفه فيضربه به ثم ينحازون نحو الطائف
فيقول أهل مكة والله لئن تركنا هؤلاء حتى يبلغ خبرهم الخليفة ليهلكنا
قال
فيسيرون إليهم فيناشدهم الهاشميون الله الله في دمائنا ودمائكم قد علمتم أنه قتل
صاحبنا ظلما فلا يرجعون عنهم حتى يقاتلونهم فيهزموهم ويستولون على مكة ويبلغ صاحب
المدينة أمرهم
فيقولون والله لئن تركناهم لنلقين من الخليفة بلاء فيبعث إليهم
صاحب المدينة جيشا فيهزمونهم فإذا بعث الخليفة إليهم بعثا فهم الذين يباد بهم
হযরত ইউসুফ ইবনে যুল কিরইয়াত হতে বর্ণিত যে, তিনি বলেন সিরিয়ায় একজন বাদশা হবে। যে মদীনায় যুদ্ধ করবে। যখন মদীনাবাসীদের নিকট তাদের দিকে আগত বাহিনীর পৌছবে তখন তাদের থেকে সাতটি দল মক্কার দিকে বের হয়ে যাবে। সেখানে তারা তাদের কে হালকা মনে করবে। অর্থাৎ নিজেদের হেফাজত মনে করবে। অতপর মদীনার খলীফা মক্কার খলীফার নিকট একটি পত্র লিখবে। যাতে সে তাকে বলবেÑ আপনার এলাকার অমুক অমুক এসেছে। সে পত্রে তাদের নাম সহ উল্লেখ করবে। সুতরাং আপনি তাদের হত্যা করে দিন। মক্কার খলীফার নিকট বিষয়টি কঠিন মনে হবে। অতপর তারা একে অপরের সাথে পরামর্শ করবে। অতপর তারা তার নিকটে রাত্র বেলায় আসবে। তারা তার অনুরোধ রক্ষা করবে। অতপর সে বলবে তোমরা মক্কা থেকে নিরাপদে বের হয়ে যাও। ফলে তারা বের হয়ে যাবে। অতপর তাদের থেকে দুই জন লোককে পাঠানো হবে। তাদের একজনকে হত্যা করা হবে। আর অপর জন দেখতে থাকবে। অতপর সে তার সাথীদের কাছে ফিরে যাবে। অতপর তারা বের হবে এমনকি তারা তায়েফের পাহাড় সমূহ থেকে কোন এক পাহাড়ে অবতরণ করবে। এবং সেখানে অবস্থান করবে। তারা জনগণের নিকট (তাদের বার্তাবহক) পাঠাবে। ফলে তাদের দিকে মানুষের ঢল বয়ে যাবে। যখন এই বিষয়গুলি ঘটবে তখন তারা মক্কাবাসীদের সাথে যুদ্ধ করবে। এবং তাদের পরাজিত করে মক্কায় প্রবেশ করতঃ মক্কার আমীর বা নেতাকে হত্যা করবে। অতপর তারা সেখানে থাকতে থাকবে। আর এরই মধ্যে যখন (যমিন) সৈন্য সহকারে ধসে যাবে তখন তার আগমনের ব্যাপারটা প্রস্তুত হবে এবং সে বের হবে।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৯২৭ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٩٢٧
ذي قريات قال
يكون خليفة بالشام يغزو المدينة فإذا بلغ أهل المدينة خروج الجيش
إليهم خرج سبعة نفر منهم إلى مكة فاستخفوا بها فكتب صاحب المدينة إلى صاحب مكة إذا
قدم عليك فلان وفلان يسميه بأسمائهم فاقتلهم فيعظم إلى صاحب مكة ثم يتوامرون بينهم
فيأتونه ليلا ويستجيرون به فيقول اخرجوا آمنين فيخرجون ثم يبعث إلى رجلين منهم
فيقتل أحدهما والآخر ينظر ثم يرجع إلى أصحابه فيخرجون حتى ينزلوا جبلا من جبال
الطائف فيقيمون فيه ويبعثون إلى الناس فينساب اليهم ناس فإذا كان ذلك غزاهم أهل مكة
فيهزمونهم ويدخلون مكة فيقتلون أميرها ويكونون بها حتى إذا خسف بالجيش استعد أمره
وخرج
ইবনে শিহাব হতে বর্ণিত যে, তিনি বলেন যখন তারা মদীনায় আসবে তখন তারা তিন দিন মদীনার অধিবাসীদের হত্যা করবে।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৯২৮ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٩٢٨
إذا أتوا المدينة قتلوا
أهلها ثلاثة أيام
হযরত আবু জা’ফর রাযিয়াল্লাহু আনহু হতে বর্ণিত যে, তিনি বলেন যখন মদীনাবাসীদের নিকট এখবর পৌছবে যে, তাদের দিকে সৈন্য আসছে। তখন মদীনায় হযরত মুহাম্মাদ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম এর পরিবার বর্গের যারা অবস্থান করবে তারা মদীনা হতে ভেগে মক্কায় চলে যাবে। আর সে সময় সমর্থবান ব্যক্তি দূর্বল ব্যক্তিকে, বড়রা ছোটদেরকে বহন করবে। অতপর তারা হযরত মুহাম্মাদ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম এর পরিবারের থেকে এক ব্যক্তিকে পাবে। তাকে তারা আহযারুয যাইত নামক স্থানে (যবাহ করে) হত্যা করে দিবে।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৯২৯ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٩٢٩
عن أبي جعفر
قال فيبلغ أهل المدينة فيخرج الجيش إليهم فيهرب منها من كان من آل محمد صلى الله
عليه وسلم إلى مكة يحمل الشديد الضعيف والكبير الصغير
فيدركون نفسا من آل محمد صلى
الله عليه وسلم فيذبحونه
عند أحجار الزيت
হযরত আব্দুল্লাহ ইবনে আমর রাযিয়াল্লাহু আনহু হতে বর্ণিত যে তিনি বলেন মদীনার ঘটনার (যুদ্ধের) আলামত বা নিদর্শন হলÑ যখন মিসরের আমীর আসবে।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৯৩০ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٩٣٠
فلان المعافري سماه ابن وهب سمع أبا فراس
سمع عبد الله بن عمرو قال علامة وقعة
المدينة إذا أقبل أمير مصر
হযরত আব্দুস সালাম ইবনে মুসলিমা হতে বর্ণিত যে, তিনি হযরত আবু কুবাইলকে বলতে শুনেছেন যে, সুফইয়ানী মদীনায় সৈন্য প্রেরণ করবে। এবং সেখানে অবস্থানরত বনু হাশেম গোত্রের সকলকে হত্যা করার আদেশ দিবে। এমনকি গর্ভবতীকেও। আর এটা ঐসময় ঘটবে যখন হশেমী ব্যক্তি সৈন্য প্রস্তুত করবে। যে তার সাথীদের উপর পূর্বাঞ্চল হতে বের হয়ে গেছে। সে বলবে উহার পুরোটাই কি ধরণের বিপদ? আমার সাথীদে পূর্ববর্তীদের ব্যতীত তাদের সকলকে হত্যা করেছে। (পরবর্তীদের হত্যা করেছে।) অতপর সে তাদের হত্যার আদেশ দিবে। ফলে তাদের হত্যা করা হবে। এমনকি তাদের কোন একজনকেও মদীনায় দেখা যাবে না। তারা সেখান থেকে পৃথক পৃথক হয়ে গ্রাম্য এলাকা, পাহাড় পর্বত, ও মক্কার দিকে পালায়ন করবে। এমনকি তাদের মহিলাগণও পালায়ন করবে। তার সৈন্য তাদের মাঝে অনেক দিন পর্যন্ত তরবারী রাখবে। অতপর তাদের থেকে হাত গুটিয়ে নিবে। ফলে তারা ভীতিগ্রস্থ প্রকাশ পাবে। আর এরই মধ্যে মক্কায় মাহদী আলাইহিস সালামের বিষয়টি প্রকাশ পাবে। যখন মাহদী আলাইহিস সালামের অবির্ভাব ঘটবে তখন তার দিকে তাদের প্রত্যেক পথ প্রদর্শন কারী মক্কায় একত্রিত হবে।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৯৩১ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٩٣١
السلام بن مسلمة سمع أبا قبيل
يقول يبعث السفياني جيشا إلى المدينة
فيأمر بقتل
كل من كان فيها من بني هاشم
حتى الحبالى وذلك لما يصنع الهاشمي الذي يخرج على
أصحابه من المشرق يقول ما هذا البلاء كله وقتل أصحابي إلا من قبلهم فيأمر بقتلهم
فيقتلون حتى لا يعرف منهم بالمدينة أحد ويفترقوا منها هاربين إلى البوادي والجبال
وإلى مكة حتى نساؤهم يضع جيشه فيهم السيف أياما ثم يكف عنهم فلا يظهر منهم إلا خائف
حتى يظهر أمر المهدي بمكة [ فإذا ظهر ] اجتمع كل مرشد منهم إليه بمكة
হযরত আবু হুরাইরা রাযিয়াল্লাহু আনহু হতে বর্ণিত যে, তিনি বলেন মদীনায় একটি যুদ্ধ হবে। যে যুদ্ধে মদীনার নিকটবর্তী উন্মুক্ত যে আহজারুয যাইত (তেলের খনি) আছে সেটার ডুবে যাবে। তবে চাবুকের এক প্রহার (এর পরিমান ব্যতীত)। অতপর মদীনা হতে দুই বারীদ বা মাইল পরিমান ঝুকে যাবে। অতপর মাহদী আলাইহিস সালামের দিকে বাইয়াত গ্রহন করবে।** সুফইয়ানী কর্তৃক মাহদী আলাইহিস সালামের প্রতি প্রেরিত সৈন্যের ধসে যাওয়া প্রসঙ্গ।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৯৩২ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٩٣٢
عن أبي هريرة رضى
الله عنه قال تكون بالمدينة وقعة تغرق فيها أحجار الزيت ما الحرة عندها إلا كضربة
سوط فينتحى عن المدينة قدر بريدين ثم يبايع إلى المهدي
الخسف بجيش السفياني
الذي يبعثه إلى المهدي

Execution time: 0.05 render + 0.00 s transfer.