Login | Register

নুয়াইম বিন হাম্মাদের: আল ফিতান

আব্বাসীয় খেলাফত পতনের প্রথম আলামত

   

আব্বাসীয় খেলাফত পতনের প্রথম আলামত

Double clicking on an arabic word shows its dictionary entry
হযরত আরতাত রহঃ কর্তৃক বর্ণিত, তিনি বলেন, আব্বাসী খেলাফত ধ্বংস তখনই হবে যখন তাদের পরস্পরের মধ্যে এখতেলাফ দেখা দিবে। সে হিসেবে তাদের রাজত্ব ধ্বংস হয়ে যাওয়ার প্রথম লক্ষণ হচ্ছে, পরস্পরের সাথে এখতেfলাফে লিপ্ত হওয়া।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৫৮৬ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٥٨٦
حدثنا الحكم بن نافع أخبرنا جراح
عن أرطاة قال هلاكهم إذا اختلفوا
بينهم فأول علامة تكون من انقطاع ملكهم اختلاف بينهم
হযরত আবু কুবাইল রহঃ থেকে বর্ণিত, তিনি এরশাদ করেন, আব্বাসীয় খেলাফতের পতন না হওয়া পর্যন্ত লোকজন খুবই আনন্দময় জীবন-যাপন করবে। আর যখন তাদের রাজত্ব খতম হয়ে যাবে তখন থেকে বিভিন্ন ধরনের ফেৎনা-ফাসাদ আসতে থাকবে এবং সেটা মাহদীর আগমন পর্যন্ত চলতে থাকবে।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৫৮৭ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٥٨٧
حدثنا محمد بن عبد
الله عن عبد السلام بن مسلمة
عن أبي قبيل قال لا يزال الناس بخير في رخاء ما لم
ينقضي ملك بني العباس فإذا انتفض ملكهم لم يزالوا في فتن حتى يقوم المهدي
আবু উমাইয়া আল-কালবী রহঃ থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, আমাদেরকে এমন একজন শেখ হাদীস বয়ান করেছেন যিনি জাহেলী যুগও প্রাপ্ত হয়েছেন এবং বয়সের কারণে তার ভ্রুযুগল চোখের উপর এসে পড়েছে। তিনি এরশাদ করেন, কালো ঝান্ডাবাহী লোকজন প্রচন্ড রণশক্তির অধিকারী হবেন, এভাবে চলার এক পর্যায়ে তারা পরস্পরের সাথে এখতিলাফে লিপ্ত হয়ে যাবে।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৫৮৮ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٥٨٨
حدثنا الوليد بن مسلم عن أبي عبدة المشجعي حدثنا أبو أمية الكلبي قال
حدثنا شيخ
أدرك الجاهلية قد سقط حاجباه على عينيه قال لا تزال أصحاب الرايات السود شديدة
رقابهم بعدما يظهر حتى يختلفوا فيما بينهم
আব্দুস সালাম ইব্নে মাসলাম রহঃ থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, আমি আবু কুবাইলকে বলতে শুনেছি, তাদের ক্ষমতা খুব ভালোভাবে চলতে থাকবে। একসময় তাদের বংশের দুই জন ছোট্ট বালকের জন্য বাইয়াত করানো তাদের মধ্যে এখতেলাফ চলতে থাকবে এবং সেটা দীর্ধদিন পর্যন্ত স্থায়ী হবে। এক পর্যায়ে শাম দেশে তিন ধরনের ঝান্ডার আত্মপ্রকাশ হবে। এটা প্রকাশ হওয়ার পরপরই আব্বাছী খেলাফতের পতন হতে থাকবে।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৫৮৯ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٥٨٩
حدثنا محمد بن عبد الله
التيهرتي عن عبد السلام بن مسلمة قال
سمعت أبا قبيل يقول لا يزال أمرهم ظاهر
حتى يبايع لغلامين منهم فإذا أدركا اختلفوا فيما بينهم فيطول اختلافهم حتى ترفع
بالشام ثلاث رايات فإذا رفعت كانت سبب إنقطاع ملكهم
হযরত খালেদ ইব্নে আবু ইমরান রহঃ থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, হযরত আলী রাযিঃ এরশাদ করেছেন, অতিসত্ত্বর এমন কতক ইমাম তোমাদের রাষ্ট্রীয় ক্ষমতা গ্রহণ করবে যারা খুবই ঘৃণীত হবে। যখন তারা তিনটি ঝান্ডার অধীনে বিভক্ত হয়ে পড়বে তখন জেনে রাখ, তাদের পতন অনিবার্য।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৫৯০ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٥٩٠
حدثنا رشدبن عن
ابن لهيعة
عن خالد بن أبي عمران قال قال علي سيليكم أئمة شر أئمة فإذا افترقوا
على ثلاث رايات فاعلموا أنه هلاكهم
হযরত আবু উমাইয়া আল-কলবী রহঃ থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, জাহেলী যুগ প্রাপ্ত হয়েছে এমন একজন শেখ আমাদেরকে বর্ণনা করেন, যার বয়সের ভারে চোখের উপরের অংশ দুই চোখের উপর এসে পড়েছে। তিনি বলেন, কালো ঝান্ডা বাহীরা প্রজাদের উপর কঠোরতা প্রদর্শন করবে। এক পর্যায়ে তারা পরস্পরের সাথে মতবিরোধে জড়িয়ে পড়বে এবং একে অন্যের বিরোধীতা করতে থাকবে। যার কারণে তারা তিন দলে বিভক্ত হয়ে যাবে। একদল নিজেদেরকে বনু ফাতেমা দাবী করবে, আরেক দল  আব্বাছ দাবি করবে। তবে আরেকদল নিজেদের দাবি করবে। বর্ণনাকারী বলেন, নিজেদের বলতে কি বুঝায়? জবাবে তিনি বলেন, আমি জানিনা, আমি এমনই শুনেছি।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৫৯১ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٥٩١
حدثنا الوليد عن أبي عبدة المشجعي عن
أبي أمية الكلبي
قال حدثنا شيخ قد أدرك الجاهلية قد سقط حاجباه على عينيه قال
لا تزال أصحاب الرايت السود شديدة رقابهم حتى يختلفوا فيما بينهم يخالف بعضهم بعضا
فيفترقون ثلاث فرق فرقة يدعون لبني فاطمة وفرقة يدعو لبني العباس وفرقة يدعوا
لأنفسهم قلت ومن أنفسها قال لا أدري وهكذا سمعت
হযরত মুহাম্মদ ইবনুল হানাফিয়্যাহ রহঃ থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, খোরাসানের দিক থেকে যে কালো ঝান্ডাগুলো প্রকাশ পাবে, তারা রাজত্ব চালাতে থাকবে, যার শুরুতে থাকবে সাহায্য। এক পর্যায়ে তারা নিজেদের মধ্যে এখতেলাফে জড়িয়ে যাবে। তাদের মতবিরোধ দেখে শাম থেকে তিন প্রকার ঝান্ডাবাহীদের আবির্ভাব ঘটবে।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৫৯২ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٥٩٢
حدثنا الوليد وأخبرني أبو
عبد الله عن مسلم بن الأخيل عن عبد الكريم أبي أمية
عن محمد بن الحنفية قال لا
تزال الرايات السود التي تخرج من خراساتن في أسنتها النصر حتى يختلفوا فيما بينهم
فإذا اختلفوا فيما بينهم رفعت ثلاث رايات بالشام
হযরত কা’ব রহঃ থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, যখন আব্বাসী খলীফাদের মধ্যে মতানৈক্য দেখাদিবে তখন সেটাই হবে তাদের রাজত্ব ধ্বংস হয়ে যাওয়ার প্রথম ধাপ।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৫৯৩ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٥٩٣
حدثنا عبد الله بن مروان
عن أرطأة بن المنذر عن تبيع
عن كعب قال إذا اختلف آل العباس فيما بينهم فهو أول
اننتفاض أمرهم
হযরত আব্দুল্লাহ ইবনে মাসউদ রাযিঃ থেকে বর্ণিত, তিনি রাসূলুল্লাহ সাঃ থেকে বর্ণনা করেন, তিনি বলেন, বনু আব্বাছের সপ্তম পুরুষ লোকজনকে কুফরীর প্রতি আহবান জানাবে তবে তারা কেউ তার আহবানে সাড়া দিবেনা। অতঃপর তাকে তার পরিবারের পক্ষ থেকে একজন বলবে, তুমি কি আমাদেরকে আমাদের ধর্ম থেকে বের করে নিয়ে আসতে চাও? সে জবাবে বলবে, আমি তোমাদেরকে হযরত আবু বকর রাযিঃ ও হযরত ওমর রাযিঃ এর আদর্শে আদর্শবান করতে চাই। তার আহবানে সাড়া দিতে সকলে অস্বীকার করে। শুধু তাই নয় তার পরিবার বনুহাশেমের ইনসাফগার একজন লোক তাকে হত্যা করে ফেলে। যখন তার উপর হামলা করে তখন তাদের মাঝে মারাত্মক এখতেলাফ সৃষ্টি হবে। সে এখতেলাফ সুফিয়ানীর আর্বিভাব হওয়ার পূর্ব পর্যন্ত চলতে থাকবে।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৫৯৪ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٥٩٤
حدثنا أبو عمرو البصري عن ابن لهيعة عن عبد الوهاب بن حسين
عن محمد بن ثابت البناني عن الحارث الهمداني
عن ابن مسعود رضىالله عنه عن
النبي صلى الله عليه وسلم قال السابع من بني العباس يدعو الناس إلى الكفر فلا
يجيبونه فيقول له أهل بيته تريد أن تخرجنا من معايشنا فيقول إني أسير فيكم بسيرة
أبي بكر وعمر رضى الله عنهما فيأبون عليه فيقتله عدوله من أهل بيته من بني هاشم
فإذا وثب عليه اختلفوا فيما بينهم فذكر اختلافا طويلا إلى خروج السفياني
হযরত আলী ইবনে আবু তালেব রাযিঃ কর্তৃক বর্ণিত, তিনি বলেন, কালো ঝান্ডাবাহী লোকজনের মাঝে মতবিরোধ দেখা দিলে ইরম নামক এলাকায় একটি গ্রাম ধসে পড়বে, যে গ্রামকে মূলতঃ খোরাস্তা বলা হয়। আর তখনই শাম থেকে তিন প্রকার ঝান্ডার অধিকারী লোকজনের আগমন হবে।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৫৯৫ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٥٩٥
حدثنا الوليد ورشدين عن ابن لهيعة عن أبي قبيل عن أبي رومان
عن علي قال إذا
اختلف أصحاب الرايات السود بينهم كان خسف قرية بارم يقال لها حرستا وخروج الريات
الثلاث باشام عندها
হযরত কা’ব রহঃ থেকে বর্ণিত, তিনি এরশাদ করেন, বনু আব্বাছের দুইজন লোক যখন তাদের অধীনস্থতা ত্যাগ করে নিজেদের মধ্যে এখতেলাফের সূত্রপাত করবে, তখন ধীরে ধীরে উক্ত এখতেলাফ ব্যাপক আকার ধারন করবে এবং তাদের পতনের কারণ হবে। দ্বিতীয় এখতেলাফের সময় সুফিয়ানীর আগমন ঘটবে।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৫৯৬ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٥٩٦
حدثنا عبد الله بن مروان عن أرطأة بن المنذر عمن حدثه
عن كعب قال إذا خلع من بني العباس رجلان وهما الفرعان وقع بينهما الاختلاف
الأول ثم يتبعه الاختلاف الآخر الذي فيه الفناء وخروج السفياني عند اختلافهم الثاني
হযরত আবুল জিলদ রহঃ থেকে বর্ণিত, তিনি এরশাদ করেন, জনৈক বনু হাশেম এবং তার ছেলে দীর্ঘ বাহাত্তর বৎসর পর্যন্ত রাষ্ট্রীয় ক্ষমতা পরিচালনা করবে।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৫৯৭ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٥٩٧
حدثنا أبو إسحاق الأقرع عن سليمان بن كثير أبي دود الواسطي وكان ثقة
حدثني حاتم بن أبي صغيرة
عن أبي الجلد قال يملك رجل وولده من بني هاشم اثنين
وسبعين سنة
হযরত কা’ব রহঃ থেকে বর্ণিত, তিনি এরশাদ করেন, নয় মাস কম এক হাজার বৎসর পর্যন্ত বনু আব্বাছগন রাষ্ট্রীয় ক্ষমতায় থাকবে। এরপর তাদের জন্য ধ্বংস অপেক্ষা করছে, উক্ত ধ্বংসের পর আরো অনেক অনেক ধ্বংস উপস্থিত রয়েছে।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৫৯৮ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٥٩٨
حدثنا الوليد بن مسلم قال قرأت
عن كعب قال يملك بنو
العباس ألفا إلا تسعة أشهر ويل لهم بعد ذلك وبعد الويل ويل
মুহাম্মদ ইবনুল হানাফিয়্যাহ রহঃ কর্তৃক বর্ণিত, তিনি এরশাদ করেন, বনু আব্বাছগন রাষ্ট্রীয় ক্ষমতা গ্রহণ করার পর দীর্ঘদিন পর্যন্ত খুব ভালোভাবে চলবে। এরপর তার নিজেদের মধ্যে এখতেলাফে জড়িত হয়ে যাবে। তখন তারা পলায়ন করার জন্য বিচ্চুর গর্ত খোঁজে পাওয়া গেলে সেটার ভিতরেও ঢুকে পড়বে। কেননা মানুষের মধ্যে দীর্ঘদিনের জন্য অনিষ্টতাÑঅকল্যাণ চলতে থাকবে। এক সময় রাজত্বও তাদের হাতছাড়া হয়ে যাবে। এভাবে চলার পর মাহদীর আগমন ঘটবে।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৫৯৯ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٥٩٩
حدثنا أبو
يوسف المقدسي وكان كوفيا حدثنا فطر بن خليفة عن منذر الثوري
عن محمد بن الحنفية
قال يملك بنو العباس حتى يأتين الناس من الخير ثم يتشعب أمرهم فإن لم تجدوا إلا جحر
عقرب فادخلوا فيه فإنه يكون في الناس شر طويل ثم يزول ملكهم ويقوم المهدي
হযরত আব্দুল্লাহ ইব্নে আব্বাছ রাযিঃ থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন রাসূলুল্লাহ সাঃ এরশাদ করেন, যখন আমার আহলে বাইতের পঞ্চম পুরুষ মারা যাবে তখন মারাত্মক বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি হবে, এভাবে সপ্তম পুরুষ পর্যন্ত চলবে, যা মাহদীর আগমন পর্যন্ত স্থায়ী থাকবে। বর্ণনাকারী বলেন, আমার কাছে শরীক থেকে সংবাদ পৌছে যে, তিনি বলেছেন, তিনি হচ্ছেন, ইবনুল আফার, অর্থাৎ হারুন। সেই ছিল পঞ্চম পুরুষ। আর আমরা বলব, সে হচ্ছে, সপ্তম পুরুষ।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৬০০ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٦٠٠
حدثنا ابن أبي هريرة عن أبيه عن علي بن أبي طلحة
عن ابن عباس رضى الله عنهما
قال قال رسول الله صلى الله عليه وسلم إذا مات الخامس من أهل بيتي فالهرج الهرج
يموت السابع ثم كذلك حتى يقوم المهدي
قال بلغني عن شريك أنه قال هو ابن العفر
يعني هارون وكان الخامس ونحن نقول هو السابع والله أعلم
হযরত আবু হাস্সান ইব্নে নওবা রহঃ থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, বনু আব্বাছের তিন জন রাষ্ট্র ক্ষমতার মালিক হওয়া অতি আবশ্যক। যাদের প্রথমজনের নাম হচ্ছে, আইন।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৬০১ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٦٠١
حدثنا ضمرة عن
أبي حسان بن نوبة قال لا بد أن يملك ثلاثة من بني العباس أول أسمائهم عين
আবু ওয়াহাব আল-কুলাঈ রহঃ থেকে বর্ণিত, তিনি এরশাদ করেন, আব্বাসী বংশের মধ্যে খেলাফতের দায়িত্ব ধারাবাহিকভাবে চলতে থাকবে, যতক্ষণ না পশ্চিমারা তাদের বিরুদ্ধে অস্ত্রধারন করবে।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৬০২ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٦٠٢
حدثنا الوليد عن شيخ من خزاعة عن أبي وهب الكلاعي قال لا يزال ملك بني العباس ظاهرا
على من ناوأهم حتى يخرج عليهم أهل المغرب
হযরত কা’ব রহঃ থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, খারাস্তা নামক কোনো এলাকা যখন ধসে যাবে এবং আব্বাছের দুইজন খলীফাকে উৎখাত করা হবে আর আব্বাসীয় বংশের লোকজনের মাঝে ব্যাপকভাবে মতানৈক্য দেখা দিবে। একপর্যায়ে বারোটি বড় এবং বারোটি ছোট পতাকা উত্তোলন করা হবে তখন তাদের রাষ্ট্রীয় ক্ষমতায় ফেৎনা জয়লাভ করতে থাকবে। ধীরে ধীরে রাজত্ত্ব তাদের হাতছাড়া হয়ে যাবে এবং শামের বিরুদ্ধে বর্বর জাতির আবির্ভাব ঘটবে।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৬০৩ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٦٠٣
حدثنا عبد الله بن مروان عن
أرطاة عن تبيع
عن كعب قال إذا خسف بقرية يقال لها
حرستا
وخلع خليفتان من بني
العباس واختلف آل العباس بينهم حتى يرفع فيهم إثنا عشر لواء وثنتا عشرة راية فعندها
يغلب عليهم
الفتن
في دار ملكهم
وبها يجتمعون فعند ذلك الآخره ويعبر جيحو وبها يجتمعون وعند ذلك سقوط ملكهم وخروج
البرير على الشام
হযরত ইবনে শিহাব যুহরী রহঃ থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, তাদের রাজত্বের পতন হবে মূলতঃ তাদের নিজেদের এখতেলাফ এবং মতানৈক্যের কারণে।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৬০৪ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٦٠٤
حدثنا عبد الله بن مروان عن سعيد بن يزيد
عن
الزهري قال انتفاض ملكهم اختلافهم فيما بينهم من حيث بدأ
হযরত আরতাত রহঃ থেকে বর্ণিত, তিনি এরশাদ করেন, বনু আব্বাছের হাত থেকে রাষ্ট্রীয় ক্ষমতা চলে শেষ আলামত হচ্ছে, তিনজন বাদশাহ যারা ধারাবাহিক ভাবে ক্ষমতাসীন হবে, তাদের প্রত্যেকের নাম হবে একেক নবীর নামের মত। এদের পর আর আব্বাসীয় খেলাফত অবশিষ্ট থাকবেনা। এদের হাতে খেলাফতে আব্বাছিয়া চল্লিশ বৎসর পর্যন্ত বহাল থাকবে। যখন তুমি তাদের মাঝে এখতেলাফ দেখবে এবং বনু হাশেম একতাবদ্ধ হতে থাকবে। তারা উভয় নদীর কিনারায় জমায়েত হবে। বনু আব্বাছের এক লোকের হাতে পশ্চিমের কিছু এলাকা অবিশিষ্ট থাকবে। কালো ঝান্ডবাহীদের আগমন শামের পক্ষ থেকে যুদ্ধের প্রস্তুতি, তাদেরকে দেশ ত্যাগে নিষেধাজ্ঞা। এসব হচ্ছে, আব্বাছীয় খেলাফত পতনের বিভিন্ন নিদর্শন।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৬০৫ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٦٠٥
حدثنا عبد الله
بن مروان
عن أرطاة قال آخر علامة من زوال ملك بني العباس ثلاثة ملوك منهم
يتوالون أسماؤهم أسماء الأنبياء لا يجاوزوهم بعد هؤلاء الملوك ومدة بني العباس من
هؤلاء الملوك الثلاثة أربعين عاما فإذا رأيت الاختلاف فيهم وجماعة من بني هاشم
فيجتمعون بين النهرين وولاية رجل من بني العباس نحو المغرب واصطكاك الرايات السود
والصفوف سره الشام وقيل والي مصر ومنع خراجها فهي من أمارة انقطاع مدتهم
হযরত শফি আল-আসবাহী রহঃ থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, বনু আব্বাছ থেকে এমন পাঁচ জন খেলাফতের দায়িত্বভার গ্রহন করবে, যাদের প্রত্যেকে হবে ভীষণ অত্যাচারী। তাদের কারণে জমিনে অবস্থান করা দুর্বিসহ হয়ে উঠবে। পঞ্চম খলীফা এভাবে মারা যাবে, জনৈক সিংহ তূল্য লোক তার উপর লাফিয়ে পড়বে, তাকে দাঁত দ্বারা চিবিয়ে মারবে। তার হাতে আসমান জমিন ধ্বংস হয়ে যাবে। যাদেরকে হত্যা করা হবে তাদের চিৎকারÑশোরগোল আল্লাহ তাআলা পর্যন্ত পৌছবে। এভাবে সে মাত্র দুই-তিন দিন খেলাফতের দায়িত্ব পালন করতে পারবে। এরপর তার ভাইয়ের থেকে একজন দায়িত্বভার গ্রহন করবে। এরপর আরেকজন গ্রহন করবে আসমান থেকে জনৈক ঘোষক ঘোষণা করবে, ‘জমী আল্লাহর জন্য এবং সকলে আল্লাহর বান্দা। সে হিসেবে আল্লাহর মালকে সকলের মাঝে বরাবর বন্টন করতে হবে। সেই বাদশাহ দীর্ঘ দশ বৎসর পর্যন্ত রাজত্ব করবে।
[ আল ফিতান: নুয়াইম বিন হাম্মাদ - ৬০৬ ]
___________________________________
نعيم بن حماد - ٦٠٦
حدثنا إدريس الخولاني عن الوليد بن يزيد عن أبيه
عن شفي الأصبحي قال يلي خمسة
من ولد العباس كلهم جبابرة ويل للأرض منهم يموت خامس بني العباس يثب عليه واثب شبه
الأسد يأكل بفمه ويفسد بيديه السموات تضج إلى الله تعالى مما يهراق على الأرض من
الدماء يملك غداتين أو ثلاثة ثم يلي والي من بعض إخوة الأبد ثم يلي والي ينادي
منادي من السماء الأرض الله والعبيد عبيد الله مال الله بين عبيده بالسوية يملك في
هذه الولاية عشر سنين
أول علامة من علامات انقطاع ملكهم في خروج الترك بعد
اختلافهم فيما بينهم

Execution time: 0.05 render + 0.00 s transfer.