Login | Register

ফতোয়া: মুফতি মেরাজ তাহসিন

ফতোয়া নং: ৪৭১৫
তারিখ: ১/১১/২০১৬
বিষয়: খাওয়া-পোশাক

টুপি ছাড়া নামাজ পড়া৷

প্রশ্ন
টুপি পরা সুন্নত। কিন্তু না পরে নামাজ পড়লে কি কোন গুনাহ হবে বা নামাজের কোনো ক্ষতি হবে? দয়া করে উত্তর দিবেন।
উত্তর
আল্লাহ তাআলা এরশাদ করেন, ‘তোমরা নামাজের সময় তোমাদের সর্বোৎকৃষ্ট পোশাক পরিধান করো’। সূরা আরাফ : ৩১
এ আয়াত থেকে বোঝা যায়, নামাজ আদায় করার
ক্ষেত্রে পোশাক গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে।
রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম মাথা ঢেকে নামাজ আদায় করতেন, আমাদেরও তাই করা উচিত। সাহাবায়েকেরামও তাবিঈগণও এ বিষয়ে যথেষ্ট গুরুত্ব দিতেন। যেমন-
হাসান ইবনে আলী রা. সম্পর্কে এসেছে, তিনি নামাজের সময় র্বোৎকৃষ্ট পোশাক পরতেন। একদিন কেউ তাঁকে এ ব্যাপারে জিজ্ঞেস করলে তিনি বলেন, নিশ্চয়ই আল্লাহ তাআলা সুন্দর এবং তিনি সুন্দরকে পছন্দ করেন। তাই আমি আমার প্রভুর জন্য সুন্দর পোশাক পরি।
রুহুল মাআনি ৪/৩৪৯৷
হাসান বসরি রহ. বলেন, তাঁরা সাহাবায়ে কেরাম গরমের কারণে পাগড়ি বা টুপির ওপর সিজদা করতেন।
বোখারি ১/৮৬ যুহাইর (রহ.) বলেন, আমি প্রখ্যাত তাবেয়ি আবু
ইসহাক সাবিয়ীকে দেখেছি, তিনি আমাদের নিয়ে নামাজ পড়েছেন। তিনি মাটি থেকে টুপি উঠিয়ে মাথায় পরেছেন।
তাবাকাতে ইবনে সাদ ৬/৩১৪৷
তাই নামাজে টুপি পরা সুন্নত এবং অবহেলা করে টুপি না পরে নামাজ পড়া মাকরুহ, যদিও নামাজ আদায় হয়ে যাবে।
ফাতাওয়া কাজিখান : ১/১৩৫৷ মুফতী মেরাজ তাহসীন মুফতীঃ দারুল উলুম দেবগ্রাম ব্রাক্ষণবাড়িয়া
01756473393

এ বিষয়ে আরো ফতোয়া:
খাওয়া-পোশাক এর উপর সকল ফতোয়া >>

Execution time: 0.01 render + 0.00 s transfer.